সোমবার   ২৬ জুলাই ২০২১   শ্রাবণ ১১ ১৪২৮   ১৬ জ্বিলহজ্জ ১৪৪২

প্রবাস খবর
সর্বশেষ:
আপনি কি আপনার প্রবাস জীবনের অভিজ্ঞতা সম্পর্কে লিখতে চান? লেখা [email protected] এ পাঠাতে পারেন।
৪৬

কুয়ালালামপুর ও সেলাঙ্গরে সবাইকে টিকা দিতে টাস্ক ফোর্স গঠন

প্রকাশিত: ১৭ জুলাই ২০২১  

সম্প্রতি করোনায় আক্রান্তের হার বেড়ে যাওয়ায় প্রাপ্তবয়স্ক সবাইকে আগামী ১ আগস্টের আগে মালয়েশিয়ার রাজধানী কুয়ালালামপুর ও সেলাঙ্গর রাজ্যে ভ্যাকসিন প্রদানের উদ্যোগ নিয়েছে দেশটির সরকার।
জানা যায়, স্থানীয় সময় শুক্রবার (১৬ জুলাই) দেশটির বিজ্ঞান, প্রযুক্তি ও উদ্ভাবন মন্ত্রী এবং জাতীয় কোভিড-১৯ টিকাদান কর্মসূচির সমন্বয়মন্ত্রী খাইরি জামালউদ্দিন এক বিবৃতিতে এসব তথ্য জানান।
এ সময় তিনি বলেন, রাজধানী কুয়ালালামপুর ও সেলাঙ্গর রাজ্যে বসবাসরত স্থানীয় ও বিদেশি সব প্রাপ্তবয়স্ককে টিকার আওতায় নিয়ে আসতে কোভিড-১৯ ‘অপারেশন সার্জ ক্যাপাসিটি’ নামের একটি টিকাদান টাস্ক ফোর্স চালু করেছে। যার লক্ষ্য আগামী ১ আগস্টের মধ্যে কুয়ালালামপুর এবং সেলাঙ্গরের সমস্ত প্রাপ্তবয়স্ক ৬ দশমিক ১ মিলিয়ন বাসিন্দাদের মধ্যে কমপক্ষে প্রথম ডোজের টিকা প্রদান করার লক্ষ্যমাত্রা রয়েছে।
যদিও গত ১৫ জুলাই পর্যন্ত কুয়ালালামপুর এবং সেলাঙ্গরে ৩ দশমিক ৫ মিলিয়ন প্রাপ্তবয়স্কদের মাঝে প্রথম ডোজের টিকা প্রদান করা হয়েছে।
এদিকে দেশটির সেলাঙ্গর সরকার এবং ফেডারেল টেরিটরিজ মন্ত্রণালয়ের সার্বিক সহযোগিতায় ‘অপারেশন সার্জ ক্যাপাসিট’ নামের টিকাদান টাস্ক ফোর্সের এই অভিযান সফল হওয়ার জন্য কুয়ালালামপুর এবং সেলাঙ্গরের দৈনিক টিকাদানের ক্ষমতা বর্তমানে এক লাখ ৮০ হাজার থেকে বাড়িয়ে দৈনিক ২ লাখ ৭২ হাজার করা হবে।
গত শুক্রবার (১৬ জুলাই) রাত পর্যন্ত পূর্ববর্তী ২৪ ঘণ্টায় দেশটিজুড়ে চার লাখ ৬ হাজার ৭৬৩ জনকে টিকা প্রদান করা হয়েছে। তার মধ্যে প্রথম ডোজের টিকা নিয়েছে ২ লাখ ৭৬ হাজার ৯০৫ জন এবং দ্বিতীয় ডোজের টিকা নিয়েছে ১ লাখ ২৯ হাজার ৮৫৮ জন।
এছাড়াও শুক্রবার পর্যন্ত পুরো মালয়েশিয়াজুড়ে ১ কোটি ৩৬ লাখ ২১ হাজার ৮৮৪ জন মানুষকে টিকা প্রদান করা হয়েছে। যার মধ্যে প্রথম ডোজের টিকা গ্রহণ করেছেন ৯৩ লাখ ১৭ হাজার ১৪৪ জন (৩৯.৮ শতাংশ) এবং দ্বিতীয় ডোজের টিকা নেওয়া সম্পন্ন করেছেন ৪৩ লাখ ৪ হাজার ৭৪০ জন (১৮.৪ শতাংশ) মানুষ।
মালয়েশিয়ায় শনিবার (১৭ জুলাই) দুপুর পর্যন্ত পূর্ববর্তী ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১২ হাজার ৫২৮ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ১৩৮ জনের। সব মিলিয়ে আক্রান্তের সংখ্যা ৯ লাখ ৫ হাজার ৮৫১ জন। এখন পর্যন্ত মালয়েশিয়ায় করোনায় মারা গেছেন ৬ হাজার ৮৬৬ জন এবং সুস্থ হয়ে বাসায় ফিরেছেন ৭ লাখ ৭৯ হাজার ১৭১ জন।

প্রবাসখবর.কম/বি

প্রবাস খবর
এই বিভাগের আরো খবর